নাস্তায় চিকেন স্যুপ

নাস্তায় চিকেন স্যুপ

নাস্তায় চিকেন স্যুপ

চিকেন স্যুপ, বাংলাদেশের হোটেলগুলোর সকালের নাস্তার বিশেষ পদ এটি।বাড়িতে অনেকেরই বানানো হয়না এই স্যুপ তবে আমার বাসায় আমি প্রায়ই বানাই কারন আমার ছেলের খুবই পছন্দ এটি।

কম স্পাইসি কিন্তু অনেক টেস্টী আর ঝোলের পরিমান বেশি থাকে বলে আলহামদুলিল্লাহ বাচ্চারা অনেক পছন্দ করে এটি।

উপকরনঃ

মুরগীঃ ১টি(১কেজি ওজনের, মাঝারি পিস করে নেয়া)
তেলঃ১/২কাপ
এলাচঃ ৬,দারচিনিঃ ৪, লংঃ ৩, তেজপাতাঃ ২ পিস
লবন পরিমান মত
পেয়াজবাটাঃ ১কাপ
আদা রসুন বাটাঃ ১ টেবিল চামচ করে
আস্ত কাচামরিচঃ ৫-৬ টি(আস্ত থাকবে)
গরম মশলা গুড়োঃ ১চাচামচ
টালা জিরা ও ধনে গুড়ঃ ১চা চামচ করে
নারিকেল দুধঃ ২কাপ
দুধঃ ২কাপ
পাউরুটিঃ ৩পিস

ফোরনের জন্যঃ

আস্ত জিরাঃ ১চা চামচ
আস্ত কালোগোলমরিচঃ ১০-১২পিস
ঘিঃ ২ টেবিলচামচ
কাচামরিচ ফালিঃ ২পিস

প্রনালিঃ

মুরগী ধুয়ে পানি ঝড়িয়ে নিন।

একই প্যানে তেলের সাথে ঘি দিয়ে গোটা গরম মশলা ও কাচামরিচ দিন।সব গুড়া ও বাটা মশলা এবং ১/২ কাপ নারিকেল দুধ দিন।মশলা ভাল করে কষীয়ে নিন।

এখন লবন ও ্মুরগী দিয়ে মশলার সাথে ভাল করে মিশিয়ে মাঝারি আচে ঢেকে দিন।পানি দিবেন না।মুরগী থেকে পানি বের হবে। মাঝেমাঝে নেড়ে কষাতে থাকুন।

৮-১০ মিনিটের মাঝে মুরগীর সব পানি টেনে তেল ভাসলে বাকি নারিকেলের দুধ দিন। ঢেকে কিছুটা কম আচে মাংস সিদ্ধ হওয়া পর্যন্ত রান্না করুন।

পাউরুটির পাশ কেটে দুধের সাথে মিশিয়ে মিহি করে ব্লেন্ড করে নিন।

এই পাউরুটি দুধ পেস্ট মাংশে দিয়ে মিশিয়ে বলক আসতে দিন। লবন দেখুন।

অন্য প্যানে ঘি দিয়ে জিরা , গোলমরিচ ও কাচামরিচ দিন।হাল্কা টেলে ঘি সহ মুরগীতে ঢেলে দিন। চামচ দিয়ে মিশিয়ে ২-৩ মিনিট ঢেকে অল্প আচে রাখুন।

চুলা থেকে নামিয়ে পরোটা , নান বারুটির সাথে পরিবেশন করুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *